যুক্তরাজ্য প্রবেশে যে ৫৯ দেশের নাগরিকদের কোয়ারেন্টাইন প্রয়োজন নেই

heathro aiport

করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব নিয়ন্ত্রনে থাকায় বিভিন্ন দেশের পর্যটকদের যুক্তরাজ্যে প্রবেশের কড়াকড়ি শিথিল করা হচ্ছে। দেশটিতে প্রবেশে থাকবে হবে না ১৪ দিনের কোয়ারেন্টাইনে। সেই তালিকায় ৫৯ দেশের নাম থাকলেও নেই বাংলাদেশ।

তবে চীন, যুক্তরাষ্ট্র, সুইডেন এবং পর্তুগালের নাগরিকরা যুক্তরাজ্যে প্রবেশ করলে তাদের ১৪ দিনের বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টাইন পালন করতে হবে। বিবিসির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, আগামী ১০ জুলাই থেকে কার্যকর হতে যাওয়া নতুন এই সিদ্ধান্তে যুক্তরাজ্যে প্রবেশে এই ৫৯ দেশের নাগরিকদের চলাচলে কোন বিধি নিষেধ থাকছে না।

যুক্ত্ররাজ্য প্রবেশে যেসব দেশের নাগরিকদের কোয়ারেন্টাইন প্রয়োজন নেই-

অ্যান্টিগুয়া অ্যান্ড বার্বুডা, আরুবা, অস্ট্রেলিয়া, অস্ট্রিয়া, বাহামা, বার্বাডোস, বেলজিয়াম, বোনাইর, সিন্ট এস্টাশিয়াস অ্যান্ড সাবা, ক্রোয়েশিয়া, সাইপ্রাস, চেক রিপাবলিক, ডেনমার্ক, ডোমিনিকা, ফারাও দ্বীপপুঞ্জ, ফিজি, ফিনল্যান্ড, ফ্রান্স, ফ্রেন্স পলিনেশিয়া, জার্মানি, গ্রিস, গ্রিনল্যান্ড, গ্রানাডা, গুয়াদেলোপ, হংকং, হাঙ্গেরী, আইসল্যান্ড, ইতালি, জ্যামাইকা, জাপান, লিচেনস্টেইন, লিথুয়ানিয়া, লুক্সেমবার্গ, ম্যাকাও, মাল্টা, মৌরিশাস, মোনাকো, নেদারল্যান্ডস, নিউ ক্যালেডোনিয়া, নিউজিল্যান্ড, নরওয়ে, পোল্যান্ড, রিইউনিয়ন, স্যান ম্যারিনো, সার্বিয়া, সিচেলেস, দক্ষিণ কোরিয়া, স্পেন, সেন্ট বার্থেলেমি, সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিস, সেন্ট লুসিয়া, সেন্ট পিয়েরে অ্যান্ড মিকুয়েলন, সুইজারল্যান্ড, তাইওয়ান, ত্রিনিদাদ অ্যান্ড টোবাগো, তুরস্ক, ভ্যাটিকান সিটি ও ভিয়েতনাম।

ইউরোপীয় ইউনিয়ন ছেড়ে আসা দেশটিতে যাতে বিদেশী নাগরিকদের মাধ্যমে করোনা ভাইরাস না ছড়ায় সেজন্য বিদেশী প্রবেশে বিধি নিষেধ বহাল ছিল। করোনার সংক্রমণ বিবেচনায় বিশ্বের ৫০ টি দেশকে হলুদ এবং সবুজ হিসেবে চিহ্নিত করেছে যুক্তরাজ্য। এই দেশগুলো থেকে কেউ ব্রিটেনে প্রবেশ করলে কয়ারেন্টাই মানতে হবে না। কিন্ত লাল তালিকায় থাকা দেশগুলো থেকে প্রবেশ করলে কোয়ারেন্টাইন মানতে হবে।

Leave a Comment

Your email address will not be published.